দীর্ঘদিন ধরেই বনিবনা না হওয়ায় স্বামী অনিক মাহমুদকে ডিভোর্স দেওয়ার পর অনেকটা একাকী ভাবে জীবনযাপন করছেন বাংলা রুপালী জগতের অন্যতম জনপ্রিয় অভিনেত্রী শাবনূর। তবে স্বামী অনিককে ডিভোর্স দেওয়ার অনেক গুলো কারন তিনি জানিয়েছেন। তিনি বলেন, অনিক প্রতিরাতে মদ্যপান অবস্থায় বাসায় এসে তার উপর নির্যাতন করতো।

তবে এর পাল্টা অভিযোগে অনিক জানিয়েছেন, তাকে বিয়ের আগে এক চীনা নাগরিককে বিয়ে করেন শাবনূর।

এরপর থেকে অনিক-শাবনূরের পাল্টাপাল্টি অভিযোগ চলছেই। অনিক জানিয়েছেন, শাবনূর ছিলেন বিবাহিত। তাকে বিয়ে করার আগে এক চীনা নাগরিককে বিয়ে করেছিলেন শাবনূর এবং ইস্কাটনের বাসায় ওই চীনা নাগরিকের সঙ্গে শাবনূরকে কয়েকবার হাতেনাতে ধরা হয়েছে।


অনিকের এমন মন্তব্যের প্রেক্ষিতে শাবনূর সংবাদ মাধ্যমকে জানান, তিনি যদি চীনা নাগরিককে বিয়ে করতেন তাহলে অনিককে কেন বিয়ে করবেন? এ সময়ে শাবনূর আরও বলেন, অনিক যার দিকে ইঙ্গিত করেছে, সেই ব্যক্তি তার থেকে অনেক ভাল। অনিক খুব বাজে একটা ছেলে, নেশাগ্রস্ত।